দাউদকান্দিতে ‘অবৈধভাবে ড্রেজারে জমি কাটায় দুলাল মেম্বারকে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড

0 415

||নিজস্ব প্রতিনিধি||

কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলার গোয়ালমারী ইউনিয়নের দৌলতেরকান্দি গ্রামে অবৈধভাবে ড্রেজার বসিয়ে ফসলি জমি থেকে মাটি কাটার অভিযোগে ড্রেজার মালিক দুলাল মেম্বারকে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

জানা যায়, সফলী জমি থেকে মাটিকাটার অভিযোগ পেয়ে দাউদকান্দি উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি ও বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট সুকান্ত সাহা আজ বৃহস্পতিবার বিকালে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন। মোবাইল কোর্ট পরিচালনার সময় দেখা যায় গোয়ালমারী ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান মেম্বার দৌলতেরকান্দি গ্রামের মো. দেলোয়ার হোসেন দুলাল মেম্বার ঐ গ্রামের একটি ফসলি জমি থেকে ড্রেজার দিয়ে মাটি কেটে ফসলি জমি ভরাট করছিল। ড্রেজার চালানোর সময় হাতেনাতে ধরা হলে সে অবৈধভাবে ফসলি জমি নষ্ট করে মাটি কাটার অপরাধ স্বীকার করেন।

এসময় ভ্রাম্যমাণ আদালতের কাছে তার অপরাধের জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করেন। ভ্রাম্যমাণ আদালত তার অপরাধ বিবেচনা করে তাকে বালুমহাল ও মাটি ব্যবস্থাপনা আইন ২০১০ এর ৫ (১) ধারায় দোষী সাব্যস্ত করে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন। 

একই সাথে দুলাল মেম্বার কর্তৃক পরিচালিত ড্রেজার মেশিন জব্দ করেন।এলাকাবাসী জানান, দৌলতেরকান্দি গ্রামের দুলাল মেম্বার বিভিন্ন মানুষের জমি ভরাট করে দেওয়ার নামে মোটা অংকের টাকা নেন। পরে বিভিন্ন মানুষের জমিতে ড্রেজার লাগিয়ে ফসলি জমি কেটে আসছে দীর্ঘদিন যাবৎ । প্রশাসনের এমন অভিযানে এলাকাবাসীর মধ্যে স্বস্তি ফিরে এসেছে। 

এ বিষয়ে দাউদকান্দি উপজেলার সহকারী কমিশনার ভূমি ও বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট সুকান্ত সাহা বলেন, ফসলি কৃষি জমি বিনষ্ট করে অবৈধভাবে ড্রেজার দিয়ে মাটি কাটার ফলে একদিকে যেমন পরিবেশের মারাত্মক ক্ষতি হচ্ছে অন্যদিকে কৃষি উৎপাদন ব্যাহত হচ্ছে। সরকারের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে যারাই এ ধরনের অবৈধ কাজে লিপ্ত হবে তাদেরকেই আইনের আওতায় আনা হবে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, দাউদকান্দি মডেল থানার সাব ইন্সপেক্টর মোঃ সালামসহ সঙ্গীয় ফোর্স।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.